সন্ত্রাসী হামলার আশঙ্কায় নয়াদিল্লিতে সর্বোচ্চ সতর্কতা জারি

single-news-image

জম্মু-কাশ্মীর ও লাদাখ আনুষ্ঠানিকভাবে ভারতের কেন্দ্রশাসিত হওয়ার আগ মুহূর্তে সন্ত্রাসী হামলার আশঙ্কায় রাজধানী নয়াদিল্লিতে সর্বোচ্চ সতর্কতা জারি করা হয়েছে। নিরাপত্তার চাদরে ঢেকে ফেলা হয়েছে প্রধান প্রধান সড়কসহ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ এলাকা। সংকট সমাধানে পাক-ভারত আলোচনায় মধ্যস্থতার আগ্রহ দেখিয়েছেন ইউরোপীয় ইউনিয়নের আইন প্রণেতারা।

এদিকে শ্রীনগরে বিক্ষোভ চলাকালীন নিরাপত্তা বাহিনীর হামলায় আহত হন বেশ কয়েকজন আন্দোলনকারী। একই দিন, কুলগামে সন্ত্রাসীদের গুলিতে পশ্চিমবঙ্গের ৫ শ্রমিক নিহত হয়েছেন, এ নিয়ে গভীর উদ্বেগ জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়।

বিশেষ মর্যাদা বাতিলের প্রতিবাদে ও দমন-পীড়নের অভিযোগে মঙ্গলবার বিক্ষোভে উত্তাল হয়ে ওঠে জম্মু-কাশ্মীরের শ্রীনগর। বিক্ষোভকারীরা, নিরাপত্তা বাহিনীর গাড়ি বহরে পাথর ছুঁড়লে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। দুপক্ষের সংঘর্ষে আহত হন অনেকে। একই দিন সোপোর, পুলওয়ামা, কুলগামসহ অন্তত ২৩ স্থানে বিক্ষোভে নামেন উপত্যকার বাসিন্দারা।

তারা বলছেন, দীর্ঘদিন ধরে আমরা অধিকারের জন্য লড়ছি। কিন্তু এ বিষয়ে বিশ্ব সম্প্রদায় এতে তেমন আগ্রহ দেখাচ্ছে না। গুম, হত্যা, বাসা থেকে তুলে নিয়ে যাওয়া- কী না হচ্ছে এখানে।

কাশ্মীরিদের উপর দমন-পীড়নের প্রতিবাদে একই দিন নয়াদিল্লিতে সমাবেশ করেছেন সমাজকর্মীরা। এ বিষয়ে বিশ্ব নেতারা নিশ্চুপ থাকায় ক্ষোভ জানান অনেকে।

সমাজকর্মী আদিল নাজির খান বলেন, কাশ্মীরিদের অবস্থা দেখুন? কি আচরণ করা হচ্ছে তাদের সাথে। মোবাইল, ইন্টারনেট, টেলিভিশনসহ সব ধরনের সংযোগ বিচ্ছিন্ন রাখা হয়েছে। কিন্তু দুঃখজনক হলো, এ বিষয়ে কারও মাথা ব্যথা নেই। কিছু মানুষকে দেখানো হচ্ছে যে উপত্যকার পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে।

একই দিন কুলগামে সন্ত্রাসীদের গুলিতে পশ্চিমবঙ্গের ৫ শ্রমিক নিহত হয়েছেন বলে জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ। নিহতরা পশ্চিমবঙ্গের মুর্শিদাবাদ থেকে আপেল বাগানে কাজ করতে কুলগামে এসেছিলেন বলে জানিয়েছে প্রশাসন। এ ঘটনায় গভীর উদ্বেগ জানিয়ে নিহতদের পরিবারকে সহায়তার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়।

এদিকে, কড়া নিরাপত্তায় জম্মু-কাশ্মীর পরিদর্শন করেছেন ইউরোপীয় ইউনিয়নের ২৩ আইনপ্রণেতা। উপত্যকার বিভিন্ন জায়গা পরিদর্শনের পাশাপাশি রাজনৈতিক নেতাদের সাথে আলোচনাও করেন তারা। সন্ত্রাস দমন করে কাশ্মীরে স্থায়ী শান্তি প্রতিষ্ঠায় ভারতকে সহায়তারও আশ্বাস দেন তারা।

ইউরোপীয় ইউনিয়নের প্রতিনিধি হেনরি মোলাস বলেন, আমরা এখানকার অনেকের সাথে আলোচনা করেছি। তারা এখানে শান্তি চায়। কিন্তু বিভিন্ন সময় সময় সন্ত্রাসী হামলার কারণে তারা আতঙ্কে থাকে। যেটা আমরা পরিদর্শনের সময়ও দেখেছি। আমরা চাই এখানে দ্রুত শান্তি ফিরে আসুক।

আগামীকাল বৃহস্পতিবার আনুষ্ঠানিকভাবে ভারতের কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল হতে যাচ্ছে জম্মু-কাশ্মীর ও লাদাখ । সেই পরিকল্পনা ভেস্তে দিতে বিভিন্ন জায়গায় জঙ্গি হামলার আশঙ্কায় নয়াদিল্লিতে সতর্কতা জারি করেছে প্রশাসন। বাড়ানো হয়েছে টহল ও নজরদারি।

এদিকে, কাশ্মীরের পরিস্থিতি এখনও স্বাভাবিক নয় এমন উদ্বেগ জানিয়ে আরো পদক্ষেপ নেয়ার কথা বলেছেন জাতিসংঘের মানবাধিকার বিষয়ক হাইকমিশনের মুখপাত্র রুপার্টক। জম্মু-কাশ্মীর পরিস্থিতি নিয়ে সুইজার‌ল্যান্ডের জেনেভায় এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। কালের কন্ঠ