পাংশায় সাংবাদিক আটকের প্রতিবাদে নিন্দার ঝড়

single-news-image

(আপলোড: ৩:৫২, জুলাই ৩১, ২০১৮)

ডন রিপোর্ট:

রাজবাড়ীর পাংশায় কোনো স্পষ্ট কারণ ছাড়া উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি আবুল কালাম আজাদকে পুলিশ আটক করায় নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে বিভিন্ন মহল। পাশাপাশি এসআই রইজ উদ্দিনকে প্রত্যাহারের দাবি জানানো হয়েছে।

সোমবার দুপুর দেড়টায় পাংশা শহরের মাহমুদ প্লাজার সামনে থেকে তাকে আটক করেন ওই অফিসার। এ খবরে ছুটে যান গণমাধ্যম কর্মীরা। কারণ জানতে চাইলে এসআই রইজ উদ্দিন বলেন- ‘উপরেরে আদেশে আজাদকে আটক করা হয়েছিল’।

তিন ঘণ্টা থানায় বসিয়ে রেখে সাংবাদিক নেতা আজাদকে ছেড়ে দেয়া হয়।

আবুল কালাম আজাদ জানান- ‘রবিবার রাতে শহরের মুনির কসমেটিক্স নামের একটি দোকানে চুরি হয়। সোমবার এ ঘটনার সংবাদ সংগ্রহ করতে গেলে আমাকে আটক করে থানায় নেয়া হয়। গ্রেফতার বা ষড়যন্ত্রের মাধ্যমে আমার কলম থামানো যাবে না’।

কালুখালী উপজেলা প্রেসক্লারে সাধারণ সম্পাদক শহিদুল ইসলাম এক বিবৃতিতে বলেন- পেশাগত দায়িত্ব পালনকালে একজন সাংবাদিককে গ্রেফতার অত্যন্ত নিন্দনীয়। এটি বস্তুনিষ্ঠ সাংবাদিকতার পথে স্পষ্ট অন্তরায়।

সচেতন নাগরিক সমাজ বাংলাদেশ এর কেন্দ্রীয় চেয়ারম্যান সিনিয়র সাংবাদিক মাসুদ চৌধুরী বলেন- দিন দিন সাংবাদিকদের পেশা ঝুঁকির দিকে ঠেলে দিচ্ছে একটি মহল। তাদের ইন্ধন যোগাচ্ছে পুলিশের কিছু সদস্য।

রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি প্রেসক্লাবের সহসভাপতি সমীর কান্তি বিশ্বাস বলেন- এভাবে একজন গণমাধ্যম কর্মী গ্রেফতার নজিরবিহীন। এ ধরনের হঠকারী সিদ্ধান্তের উপযুক্ত তদন্ত করতে হবে।