চাইনিজ রেস্টুরেন্টে সাভারের সবজি

single-news-image

আহসান উল্লাহ, সাভার:

বিদেশি সবজি চাষ করে ভাগ্যের চাকা ঘুরিয়েছে অনেক প্রান্তিক কৃষক। দেশিজাত থেকে এসবে বেশি লাভ হওয়ায়, বেকার যুবকরাও হয়ে উঠছেন আগ্রহী।

সাভারের ম্যাটকা, মুশুরীখোলা, ঝাউচর, কাইসারচর, ভাকুর্তাজুড়ে দেখা যায় রেডক্যাবেজ, পাসলে, সেলরি, লেটুসপাতা, থাইপাতা, চেলিটমেটু, বেবিকন, সুইটকন, স্প্রিং অনিয়ন, লেটুসআইসবার কেপসিকাম, রোটবিট, ব্রকলি ও লেটুসলুলু।

রাজধানীর গুলশান, বনানীসহ দেশের অভিজাত চাইনিজ রেস্টুরেন্টে সরবরাহ করা হয় এসব সবজি।

স্বাদে-গন্ধে অসাধারণ এসব সবজির ফলনও হয় বেশি। জন্মেও সারা বছর। তবে কেপসিকাম, রোটবিট ও ব্রকলি বেশি হয় শীতকালে। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বেশি।

শুরুটা করেন ম্যাটকা গ্রামের অভি নামে এক যুবক।প্রথমে তিনি আধাবিঘা জমিতে লেটুস আর থাইপাতা লাগান। পরে প্রচুর লাভ দেখে অন্যরাও আগ্রহী হয়ে ওঠেন। এখন সাভারের কয়েকশ একর জমিতে শুধুই বিদেশি সবজি।